ইলিশ চলে আসছে বাংলাদেশে, মা'থায় হাত ভা'রতীয়দের

গঙ্গা মোহনায় ইলিশের দেখা মিলছে না। হা-হুতাশ করছেন মৎস্যজীবীরা। ভা'রতীয় বিশেষজ্ঞদের মতে, গঙ্গায় দূষণের মাত্রা এতটাই বেড়ে গিয়েছে যে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে ইলিশ। ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশের গন্তব্য এখন বাংলাদেশের পদ্মা পাড়ে।

ভা'রতভিত্তিক সংস্থা সাউথ এশিয়া নেটওয়ার্ক অব ড্যাম রিভা'র অ্যান্ড পিপলস সম্প্রতি একটি রিপোর্ট প্রকাশ করেছে। রিপোর্টে গঙ্গায় ইলিশের দেখা না পাওয়ার কারণ হিসেবে দূষণকেই বেশি মাত্রায় দায়ী করা হয়েছে। তাদের রিপোর্টে উঠে এসেছে, গঙ্গা থেকে অচিরেই উধাও হতে চলেছে ইলিশ।

বিশেষজ্ঞদের মতে, পশ্চিমবঙ্গে নদীর পাড় বরাবর গড়ে ওঠা একশোটিরও বেশি পৌরসভা'র ময়লা আবর্জনা ও কলকারখানার বর্জ্যে গঙ্গায় দূষণের মাত্রা ধ'রাছোঁয়ার বাইরে চলে গেছে। তাদের মতে, ডিম সংরক্ষিত রাখার জন্য ইলিশের মিষ্টি পানির প্রয়োজন হয়। সেইজন্যই তারা গঙ্গায় আসে। কিন্তু দূষণের ফলে গঙ্গায় লবণের মাত্রা অ'ত্যাধিক বেড়ে গিয়েছে। সেই কারণেই ইলিশ এখন গঙ্গার মোহনায় এসেও ফিরে যাচ্ছে।

অন্যদিকে গঙ্গা থেকে মুখ ঘুরিয়ে নিয়ে ইলিশের গন্তব্য এখন বাংলাদেশের দিকে। বাংলাদেশের পদ্মা পাড়ে এখন জাল ফেললেই ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ উঠছে।

বাংলাদেশের মৎস্য বিভাগের এক পরিসংখ্যান জানাচ্ছে, গত ২ বছরের তুলনায় বাংলাদেশে ১৯ শতাংশ ইলিশ বেশি ধ'রা পড়েছে। শুধু পদ্মাপাড়েই নয়, মিয়ানমা'রের উপকূলেও এখন প্রচুর ইলিশের দেখা মিলছে। বাংলাদেশের মৎস্য অধিদপ্তরের এক কর্মক'র্তা জানান, ‌পদ্মা পার বরাবর ভা'রী শিল্প, কলকারখানা তেমন গড়ে ওঠেনি। তাই এখনও পদ্মা'র মোহনা ইলিশের কাছে ব্রাত্য হয়ে ওঠেনি।’‌ তবে গঙ্গার দূষণ বাড়ায় সবচেয়ে বেশি ক্ষতির সম্মুখীন হতে হচ্ছে মৎস্যজীবীদের। তাদের এখন মা'থা চাপড়ানো ছাড়া কোনও উপায় নেই। সূত্র: হিন্দুস্তান টাইমস।

Back to top button

You cannot copy content of this page